সোমবার   ২১ অক্টোবর ২০১৯   কার্তিক ৫ ১৪২৬   ২০ সফর ১৪৪১

চট্টলার বার্তা
সর্বশেষ:
পাল্টাপাল্টি হামলায় ভারতের ৯, পাকিস্তানে ৭ জন নিহত আর কিপিং করবেন না মুশফিক? বাংলাদেশের উন্নয়ন পরিদর্শনে নিউইয়র্কের পাঁচ সিনেটর আজ ঢাকায় আসছেন রাষ্ট্রপতি জাপান ও সিঙ্গাপুর সফরে যাচ্ছেন আজ হাইকোর্টে ৯ বিচারপতি নিয়োগ দুই সেনা নিহতের পর পাকিস্তানে হামলা চালিয়েছে ভারত ‘বাংলাদেশের নির্মিত ফোন সারা বিশ্বে ব্যবহার হবে’ বিকেলে যুবলীগের সঙ্গে বসছেন শেখ হাসিনা

ই-সিগারেটের যত ক্ষতি

লাইফস্টাইল ডেস্ক

প্রকাশিত: ৯ অক্টোবর ২০১৯  

ই-সিগারেট বা ইলেকট্রনিক সিগারেট ব্যাটারি চালিত এক ধরনের যন্ত্র। অনেকেরই প্রশ্ন এই জিনিস দিয়ে কী আসলে ধূমপান ছাড়া সম্ভব? অনেকটা দুধের স্বাদ ঘোলে মেটানোর মতো অবস্থা। যারা ধূমপান ছেড়ে দিতে চান, তারা এই ই-সিগারেট পান করেন। ই-সিগারেটের ভেতরে থাকে নিকোটিনের দ্রবণ যা ব্যাটারির মাধ্যমে গরম হয়। যার ফলে আসল সিগারেটের মতো ধোঁয়া তৈরি হয়। এটার বিভিন্ন ক্ষতিকারক দিকও আছে।

বর্তমানে সময়ে লক্ষ্য করে দেখা গেছে সমাজের তরুণদের মধ্যে অনেকেই সিগারেট ছাড়তে বা সিগারেটের বিকল্প হিসেবে হাতে তুলে নিয়েছে ই-সিগারেট।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, ইলেকট্রনিক সিগারেট তামাকবিহীন হলেও এটার বিভিন্ন ক্ষতিকরক দিক রয়েছে।

আসুন দেখে নেয়া যাক, ই-সিগারেটের পান করলে কী কী ক্ষতি হতে পারে-

১. ইলেকট্রনিক সিগারেট বা ই-সিগারেটের কার্সিনোজেনিক রাসায়নিক পদার্থ ক্যানসারে আক্রান্ত হওয়ার অন্যতম কারণ।

২. ই-সিগারেটের কারণে শরীরের রোগ-প্রতিরোধকারী কোষ বিকল হয়ে ফুসফুসের রোগ ও শ্বাসযন্ত্রে ইনফেকশন হতে পারে।  

৩. ই-সিগারেটেও অন্য সব সাধারণ সিগারেটের মতোই ক্ষতিকারক নিকোটিন থাকে। ফলে তাতেও নেশা হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। এখানেই শেষ নয়, কোকেন ও গাঁজা জাতীয় মাদকের প্রতি আসক্তি বাড়াতে পারে ই-সিগারেটে।

তাই নিজে স্বাস্থ্য সচেতন হোন এবং অন্যকে এ ব্যাপারে সর্তক করুন। 

চট্টলার বার্তা
চট্টলার বার্তা